প্রবাসী আলীনগর ইউনিয়ন সমিতি ইউকে এলাকার দুস্থদের মুখে হাসি ফুটিয়েছে : মামুন                 পবিত্র মাহে রমজান রোববার থেকে                 বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজ’র শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে হাকালুকি হাওরবাসীর মধ্যে ত্রাণ বিতরণ                 ফেসবুকে ছবি নিয়ে অনৈতিক ওস্তাদিপনা                 চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে বাংলাদেশের ইতিহাস                 গোলাপগঞ্জের ঢাকা দক্ষিণ চ্যাম্পিয়ান লীগ’র ফাইনাল অনুষ্ঠিত                 মিথ্যা মামলায় আমাকে জেল খাটানো হয়েছে :সংবাদ সম্মেলনে ইটালী প্রবাসী সুলেমানের অভিযোগ                
সর্বশেষ:

ট্রাম্পের নতুন ‘মুসলিম নিষেধাজ্ঞাও’ আটকে গেল আদালতে

: বিয়ানীবাজার কন্ঠ
Published: 16 03 2017     Thursday   ||   Updated: 16 03 2017     Thursday
ট্রাম্পের নতুন ‘মুসলিম নিষেধাজ্ঞাও’ আটকে গেল আদালতে

বিয়ানীবাজারকণ্ঠ.কম ::

যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা সংক্রান্ত প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সংশোধিত দ্বিতীয় নির্বাহী আদেশও আটকে দিয়েছে দেশটির একটি আদালত। দেশটির হাওয়াই রাজ্যের ইউএস ডিসট্রিক্ট জজ ডেরিক ওয়াটসন তার ৪৩ পৃষ্ঠা রায়ের মাধ্যমে দ্বিতীয় নির্বাহী আদেশের কার্যকারিতা অবিলম্বে স্থগিত রাখার নির্দেশ প্রদান করেন। আদালতের এ নির্দেশ শুধু হাওয়াই নয়, যুক্তরাষ্ট্রের সব সীমান্ত বন্দরের জন্য কার্যকর বলে রায়ে উল্লেখ করা হয়।

স্থানীয় সময় ১৬ মার্চ বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে এ নিষেধাজ্ঞা কার্যকরের কথা ছিল। কিন্তু এর কয়েক ঘণ্টা আগেই হাওয়াই রাজ্যের ফেডারেল বিচারক ট্রাম্পের এই নির্বাহী আদেশকে আটকে দিলেন। স্থানীয় সময় বুধবার রাতে ডিস্ট্রিক্ট জাজ এক আদেশের মাধ্যমে ওই নিষেধাজ্ঞা আটকে দেন।

ওয়াটসন বলেন, সরকার জাতীয় নিরাপত্তার দোহাই দিয়ে যে নিষেধাজ্ঞা জারি করতে চাইছে তা ‘প্রশ্নবিদ্ধ’।

অন্যদিকে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প তার প্রতিক্রিয়ায় বিচারকের এমন আদেশকে ‘বিচার বিভাগের অভিনব কৌশল’ বলে বর্ণনা করেন। বুধবার সন্ধ্যায় টেনেসির ন্যাশভিলে সমর্থকদের নিয়ে এক সমাবেশ শুরুর আগে ট্রাম্প বলেন, হাওয়াইয়ের আদালতের এই আদেশ যুক্তরাষ্ট্রকে ‘আরও দুর্বল’ করে তুলবে। এ বিষয়ে আইনি লড়াই চালিয়ে যাওয়ার অঙ্গীকার করে বলেন, ‘প্রয়োজনে সুপ্রিম কোর্ট পর্যন্ত যাবো। আমরা অবশ্যই জিতবো।’

প্রথম দফা নির্বাহী আদেশে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সাতটি মুসলমান দেশ থেকে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে সাময়িক নিষেধাজ্ঞা জারি করেন। ক্ষমতা গ্রহণের পরপরই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের এমন নির্বাহী আদেশের বিরুদ্ধে ব্যাপক প্রতিবাদ শুরু হয়। বিষয়টি আদালতে গড়ালে প্রথম নির্বাহী আদেশের কার্যকারিতা স্থগিত হয়ে পড়ে। সুপ্রিম কোর্টে আপিল করার পরিবর্তে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প দ্বিতীয় দফা একই বিষয় নিয়ে নির্বাহী আদেশ জারি করেন।

ভ্রমণ বিষয়ক ট্রাম্পের প্রথম নির্বাহী আদেশে সাতটি দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও, গত ৬ মার্চ জারি করা দ্বিতীয় দফার আদেশে ইরাককে বাদ দেয়া হয়। বাকি ছয়টি দেশ হলো ইরান, সিরিয়া, ইয়েমেন, সুদান, লিবিয়া ও সোমলিয়া। নতুন আদেশ অনুযায়ী এই দেশগুলোর ওপর ৯০ দিনের ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকবে এবং শরণার্থীদের ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র প্রবেশে নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ রাখা হয়েছে ১২০ দিন। দ্বিতীয় নির্বাহী আদেশে গ্রিনকার্ডধারী এবং আগে ভিসা নেওয়া আছে—এমন লোকজনকে নিষেধাজ্ঞা থেকে বাদ দেওয়া হয়।

এই নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে গত সপ্তাহেই মামলা করে হাওয়াই অঙ্গরাজ্য। জানুয়ারিতে ট্রাম্পের প্রথম নির্বাহী আদেশের বিরুদ্ধেও মামলা করেছিল হাওয়াই। নতুন নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে আগের মামলা সংশোধন করে দাখিল করা হয়।

যুক্তরাষ্ট্রের যে কয়টি রাজ্য মুসলিমদের প্রবেশ নিষেধাজ্ঞা বন্ধের চেষ্টা চালাচ্ছে হাওয়াই তার মধ্যে অন্যতম। ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা সংক্রান্ত দ্বিতীয় নির্বাহী আদেশও আটকে যাবার পর ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানান ডোনাল্ড ট্রাম্প।

বিশেষ দেশ এবং বিশেষ ধর্মকে লক্ষ্য করে যুক্তরাষ্ট্রে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা জারি করা সংবিধান এবং যুক্তরাষ্ট্রের মূল চেতনার বিরোধী বলে প্রতিবাদ অব্যাহত থাকে। অন্তত ছয়টি রাজ্যে এমন নির্বাহী আদেশের বিরুদ্ধে আবারও মামলা করা হয়। হাওয়াই ছাড়া আরও দুটি রাজ্যে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের নির্বাহী আদেশের বিরুদ্ধে গতকাল বুধবার শুনানি অনুষ্ঠিত হয়। ওয়াশিংটন ও ম্যারিল্যান্ড রাজ্যের ইউএস ডিসট্রিক্ট কোর্টের নির্দেশ আসার আগেই বিচারক ডেরিক ওয়াস্টনের আদেশে স্থগিত হয়ে পড়ল প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ভ্রমণসংক্রান্ত দ্বিতীয় নির্বাহী আদেশ।

Share Button
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •   
  •   
  •   
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



Share Button
May 2017
S S M T W T F
« Apr    
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
2728293031  

devolop web-it-home, 2017